Thursday, May 23, 2024
প্রচ্ছদকুষ্টিয়াকুষ্টিয়া সদরবিআরবি গ্রুপের অঙ্গ প্রতিষ্ঠান হাসিব ড্রীম স্কুল কলেজের অধ্যক্ষ তার বিরুদ্ধে আনিত...

বিআরবি গ্রুপের অঙ্গ প্রতিষ্ঠান হাসিব ড্রীম স্কুল কলেজের অধ্যক্ষ তার বিরুদ্ধে আনিত অভিযোগই স্বীকার করেছেন তার স্বাক্ষরিত প্রতিবাদ লিপিতে

Published on

দৈনিক সময়ের দিগন্ত, কুষ্টিয়া প্রতিদিন, দৈনিক শিকল , অনলাইন কুষ্টিয়ার কন্ঠ নামের পত্রিকায় হাসিব ড্রীম, স্কুল কলেজের অধ্যক্ষের বিরুদ্ধে ব্যাপক- চতুর্থ শ্রেনীর শিক্ষার্থীকে বেধড়ক মারপিট ২ মাস ক্লাস সাসপেন্ড হওয়ার যৌগ্য অপরাধ কি! যে সংবাদ প্রকাশিত হয়েছে তা ভিত্তিহীন বানোয়াট। হাসিব ড্রীম স্কুল কলেজের চতুর্থ শ্রেনীর শিক্ষার্থী জায়েদ সিদ্দীকি জিহানকে বেধড়ক মারপিট করার কথা লেখা হয়েছে তা সম্পূর্ন মিথ্যা ও ভিত্তিহীন বলে দাবী করেছেন স্কুলের ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ হাবিবুর রহমান। তিনি বলেন ঐ শিক্ষার্থী ৩য় শ্রেনীর ছাত্র থাকা অবস্থায় বিশৃঙ্খল আচরণ ও দুষ্টুমীর কারণে অন্যান্য শিক্ষার্থী ও অভিভাবকদের নিকট থেকে প্রতিনিয়ত অভিযোগ আসতে থাকে। চতুর্থ শ্রেনীতে ভর্তির পর উক্ত শিক্ষার্থীর বিশৃঙ্খলা ও দুষ্টুমীর মাত্রা সীমা ছাড়িয়ে বেয়াদবির পর্যায়ে পৌছায়। উক্ত শিক্ষার্থীর অভিভাবককে বিষয়টি শিক্ষকগণ একাধিকবার অবহিত করেন। জিহানের অভিভভাবক বারবার ক্ষমা প্রার্থনা করেন। ২৯/৭/১৮ ইং তারিখে জিহানের পিতা অর্ধবার্ষিকী পরীক্ষার পর জিহানকে অন্য স্কুলে নেয়ার কথা বলে লিখিত অঙ্গীকার করেন। এরপর ২০১৮ ইং সালের বার্ষিকী পরীক্ষা পর্যন্ত অধ্যক্ষ সময় বর্ধিত করেন। গত ৫/৮/১৮ ইং তারিখে জিহান পুনরায় শ্রেনী কক্ষে অন্যান্য শিক্ষার্থীদের সামনে ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষের নামে অশালিন কথা বলে। ৬/৮/১৮ তারিখে জিহানের অভিভাবককে ডেকে তার সন্তানকে অন্য স্কুলে ভর্তি করানোর জন্য বলা হয়। তখন জিহানের পিতা পুনরায় অনুরোধ করেন যেহেতু আমার আরো একটি সন্তান ফাতেমা সিদ্দিকী জারা আপনার স্কুলের প্লে শ্রেনীতে অধ্যায়ন করছে তাই জিহানকে চতুর্থ শ্রেনী সম্পন্ন করার সুযোগ দান করলে কৃতজ্ঞ থাকবো। জিয়ানের পিতামাতা মৌখিক আবেদন করলে শিক্ষকের সাথে পরামর্শ ক্রমে ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ তাকে জানান নিয়মিত বেতন ও পরীক্ষার ফি পরিশোধ সাপেক্ষে চতুর্থ শ্রেনীর টিউেিটারিয়াল ও বার্ষিক পরীক্ষায় অংশ গ্রহন করতে পারবে। সেই সুবাদে জিহান গত ৭/৮/২০১৮ ইং তারিখ থেকে নিয়মিত ক্লাসে অনুপস্থিত আছে।

প্রতিবাদ লিপিকে অধ্যক্ষ লিখেছেন খন্দকার তাহামিদ আবরাম আকিব, যে নার্সারী ইংরেজি ভার্সনে ভর্তি হয়েছিল। সে মানসিকভাবে ক্লাসের জন্য উপযুক্ত ছিল না। গত ১৪ ফেব্র“য়ারী ২০১৮ ইং তারিখ থেকে তার বাবা মা আর তাকে স্কুল পাঠান না।

প্রতিবাদলিপিতে অধ্যক্ষ বলেছেন ৩ জন শিক্ষকের বিরুদ্ধে যথাযথ তথ্য প্রমান সংগ্রহ করে যোক্তিক কারণেই কারন দর্শানোর নোটিশ সহ অসদাচরনের তথ্য প্রমানের ভিত্তিতে স্কুল পরিচালনা পর্ষদের সভাপতির নির্দেশে নিয়োগ পত্রের শর্তমোতাবেক তাদের চাকুরীচ্যুত করা হয়েছে।

প্রতিবাদ লিপিতে একজন অভিভাবকের সাথে অধ্যক্ষের ব্যক্তিগত সম্পর্কের অভিযোগ সম্পূর্ন ভিত্তিহীন ও বানোয়াট। গত ২৪ জুন ২০১৮ সালে উক্ত শিক্ষার্থীর পিতা তার সন্তানের নাম পরিবর্তনের জন্য কুষ্টিয়া কোর্টের কিছু মামলা মোকদ্দমার কাগজপত্র সহ সংশ্লিস্ট এ্যাড. এর মাধ্যমে আবেদন করেন। পরবর্তীতে উক্ত শিক্ষার্থীর মাতাও তার পক্ষের মামলার রায় ও অন্যান্য কাগজপত্র সহ তার পক্ষের এ্যাড. এর মাধ্যমে আবেদন করেন সন্তানের নাম যা আছে সেটাই রাখার জন্য। যা এখনও আদালতের বিচারাধীন। যেহেতু আদালতের বিচারাধীন সেহেতু উক্ত শিক্ষার্থীর পিতার নাম পরিবর্তন ও উক্ত শিক্ষার্থীর মায়ের সাথে অধ্যক্ষ্যের ব্যক্তিগত সম্পর্ক সম্পূর্ন ভিত্তিহীন ও বানোয়াট ও উদ্দেশ্যপ্রনোদিত।

স্কুল ছুটির পর ৩ জন শিক্ষিকা অধ্যক্ষের রুমে বসে আড্ডা দেয় এবং তাদের সাথে পরামর্শ করে ৩ জন শিক্ষককে চাকুরীচ্যুত করা হয়েছে এবং শিক্ষকরা তাদের পছন্দের মানুষকে নিয়োগ প্রদান করেছে এ বিষয়টি ভিত্তিহীন। বিআরবি গ্রুপের প্রশাসনিক স্বচ্ছতা সম্পর্কে কুষ্টিয়াবাসী সহ দেশবাসী অবগত। কাজেই বিআরবি গ্রুপের অঙ্গ প্রতিষ্ঠান হাসিব ড্রীম স্কুল কলেজের উন্নতি ও সমৃদ্ধি দেখে একটি কুচক্রি মহল মিথ্যা ও ভিত্তিহীন সংবাদ প্রকাশ করেছে হাসিব ড্রীম স্কুল কলেজ তার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাচ্ছে।

প্রতিবেদকের বক্তব্য ॥ সংবাদপত্রে ছাপা হয় জিহানের ক্লাস সাসপেন্ড করে রাখা হয়েছে। মানবিক দিক বিবেচনা করে একটি শিশুর মানসিক বিকাশ বাধাগ্রস্থ করার সিদ্ধান্তের প্রতিবাদে সংবাদটি প্রকাশ করা হয়। এই সংবাদের কোথাও বলা হয়নি জিহান দুষ্টুমি করে নাই। কুষ্টিয়া প্রতিদিন এবং শিকল পত্রিকার শিরোনামে ও সময়ের দিগন্ত পত্রিকার সংবাদের ভিতরে স্পষ্ট করে বলা হয়েছে দুষ্টুমীর কারনে ২মাস ক্লাস সাসপেন্ড করে রাখা হয়েছে জিহানের। প্রতিবাদলিপিতে স্পষ্টভাবে অধ্যক্ষ স্বীকার করেছেন জিহান ক্লাসে অনুপস্থিত এবং তার অভিভাবকের কাছ থেকে অঙ্গীকার নামা লিখে নিয়েছেন অধ্যক্ষ। কোন ভর্তিকৃত শিক্ষার্থীকে যদি দুষ্টুমি করার কারণে তার ক্লাশ সাসপেন্ড করে রাখা হয় এবং অন্য স্কুলে নিয়ে যাওয়ার কথা বলা হয় তাহলে সেখানে মানবিক বিপর্যয় সংঘটিত হচ্ছে বলে ধরে নেয়া হবে। আর অধ্যক্ষ জিহানকে স্কুল থেকে নিয়ে যাওয়ার জন্য বলেছেন তা তিনি প্রতিবাদ লিপিতে স্বীকার করেছেন। জিহানকে মারপিট করার অভিযোগ ছিল সংবাদপত্রের নয়, জিহানের পিতার। এখানে মনগড়া কোন সংবাদ প্রকাশ করা নাই। জিহানের পিতার অভিযোগের ভিত্তিতেই সংবাদটি প্রকাশ হয়েছে। প্রকাশিত সংবাদের মধ্যে অধ্যক্ষের যে বক্তব্য ছাপা হয় তাকে স্পষ্ট করেই বলা হয়েছে জিহানকে মারপিট করার কথা তিনি অস্বীকার করেছেন। প্রতিবাদের বক্তব্যের ২য় পাতায় আকিব সম্পর্কে বলা হয়েছে তার পিতা মাতা তাকে আর স্কুলে পাঠান না। এখানে অধ্যক্ষ চরম মিথ্যাচার করেছেন। আকিবের মাতার অভিযোগ তাকে অটিষ্টিক আখ্যা দিয়ে স্কুল থেকে বের করে দেয়া হয়েছে-এই বক্তব্য সংবাদপত্রের নয়, আকিবের মাতার।

৩ জন শিক্ষককে চাকুরীচ্যুত করার বিষয়ে অধ্যক্ষ যা বলেছেন তা সঠিক নয়। চাকুরীচ্যুত শিক্ষক ফয়সাল জানান, কোন কারন দর্শনোর নোটিশ ছাড়াই তাকে চাকুরীচ্যুত করা হয়েছে। শ্রম আইন ২০০৬ এর বিধি মোতাবেক প্রতিবাদলিপিতে যে অসদাচরনের কথা বলা হয়েছে তার কোন ব্যাখ্যা দেয়া হয়নি। কি অসাদাচারণ করলো যার জন্য এক সাথে তিনজন শিক্ষককে চাকুরীচ্যুত করা হলো। অধ্যক্ষের ফৌজদারী অপরাধের বিষয়ে যে ব্যাখ্যা প্রদান করেছেন তা “ঠাকুর ঘরে কে রে আমি তো কলা খায় নি মা” এর মত অবস্থা। প্রতিবেদনে শুধুমাত্র একজন শিক্ষার্থীর পিতার নাম পরিবর্তনের বিষয়টি পুলিশ পর্যন্ত গড়িয়েছে ছাপা হয়। কিন্তু অধ্যক্ষ এ সংক্রান্ত আদালতে চলা মোকদ্দমার বিস্তারিত বিষয় প্রতিবাদলিপিতে উল্লেখ করেছেন।

স্কুল ছুটির পর অধ্যক্ষ রুমে বসে আড্ডা দেন অধ্যক্ষ এ বিষয়টি অস্বীকার করলেও এক শিক্ষিকার খালাতো বোন ও এক শিক্ষিকার বাড়ির কাজের মেয়েকে চাকুরী দেয়ার বিষয়টি পত্রিকায় ছাপা হয় তা সম্পর্কে কোন ব্যাখ্যা দেন নাই। সংবাদটি প্রকাশিত হয় অধ্যক্ষের বিরুদ্ধে কিন্তু সংবাদপত্রে বিআরবি গ্রুপের অব ইন্ডাষ্ট্রিজ তথা হাসিব ড্রীম স্কুল কলেজের গুনগত মান নিয়ে কোন প্রশ্ন তোলা হয়নি। অধ্যক্ষ নিজে বাঁচতে বিআরবি গ্রুপের নাম জড়িয়ে প্রতিবাদ লিপি পাঠিয়েছেন। যা সম্পূর্ন অবাঞ্চিত একটি বিষয়।

সর্বশেষ

কুষ্টিয়ায় আর্জেন্টিনা-ব্রাজিল সমর্থকদের সংঘর্ষে আহত ৭

কুষ্টিয়া সদর উপজেলায় বিশ্বকাপ ফুটবলের ফাইনাল খেলা নিয়ে বাগ্‌বিতণ্ডার পর সংঘর্ষে জড়িয়ে অন্তত সাতজন...

কুষ্টিয়ায় শিক্ষার্থীকে শ্লীলতাহানি, বরখাস্ত প্রধান শিক্ষককে পুলিশে সোপর্দ

কুষ্টিয়ার কুমারখালীতে পঞ্চম শ্রেণীর এক শিক্ষার্থীকে শ্লীলতাহানির মামলায় বরখাস্ত প্রধান শিক্ষককে বৃহস্পতিবার (১৫ ডিসেম্বর)...

কুষ্টিয়ায় পৃথক সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত ২

কুষ্টিয়ায় পৃথক সড়ক দুর্ঘটনায় একটি শিশুসহ দু’জনের মৃত্যু হয়েছে।   বৃহস্পতিবার (১৫ ডিসেম্বর) দুপুরের দিকে...

পাসপোর্ট সংশোধনে সরকারের নতুন নির্দেশনা

এনআইডির তথ্য অনুযায়ী পাসপোর্ট রি-ইস্যুর নির্দেশ স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের জাতীয় পরিচয়পত্রে (এনআইডি) দেওয়া তথ্য অনুযায়ী পাসপোর্ট...

আরও পড়ুন

কুষ্টিয়ায় আর্জেন্টিনা-ব্রাজিল সমর্থকদের সংঘর্ষে আহত ৭

কুষ্টিয়া সদর উপজেলায় বিশ্বকাপ ফুটবলের ফাইনাল খেলা নিয়ে বাগ্‌বিতণ্ডার পর সংঘর্ষে জড়িয়ে অন্তত সাতজন...

কুষ্টিয়ায় পৃথক সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত ২

কুষ্টিয়ায় পৃথক সড়ক দুর্ঘটনায় একটি শিশুসহ দু’জনের মৃত্যু হয়েছে।   বৃহস্পতিবার (১৫ ডিসেম্বর) দুপুরের দিকে...

কুষ্টিয়ায় স্বামী-স্ত্রী পরিচয়ে হোটেলে, কলেজছাত্রীর মৃত্যুর পর যুবক আটক

কুষ্টিয়ায় একটি আবাসিক হোটেলে শয্যা বিশ্বাস (১৮) নামে এক কলেজছাত্রীর মৃত্যু হয়েছে। এ ঘটনায়...