Friday, April 12, 2024
প্রচ্ছদকুষ্টিয়াঅপরাধকুষ্টিয়ায় হত্যার অভিযোগে মাদকাসক্তি পূনর্বাসন কেন্দ্র সিলগালা: আটক-৩

কুষ্টিয়ায় হত্যার অভিযোগে মাদকাসক্তি পূনর্বাসন কেন্দ্র সিলগালা: আটক-৩

Published on

কুষ্টিয়ার মিরপুরে একটি মাদক নিরাময় কেন্দ্রে এক তরুণ রোগীকে হত্যা করার অভিযোগ উঠেছে।

এই অভিযোগ পাওয়ার পর বুধবার পুলিশ ‘সমর্পণ’ নামে ওই নিরাময় কেন্দ্রে নির্যাতনে অভিযান চালিয়ে এটি সিলগালা করে দেয়। আটক করা হয় এর পরিচালকসহ তিন জনকে।

আটকরা  হলেন- প্রতিষ্ঠানের মলিক আব্দুল মতিন এবং তার শ্যালক ও তত্ত্বাবধায়ক হাবিব উদ্দিন এবং মিন্টু। তাদের মিরপুর থানা পুলিশ হেফাজতে জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে বলে জানিয়েছেন মিরপুর থানার ওসি আবুল কালাম।

গত ১৯ নভেম্বর ওই প্রতিষ্ঠানে চিকিৎসা নিতে ভর্তি করা হয় মিরপুর উপজেলার কাদেরপুল গ্রামের এজাজুল আজীমের ছেলে ইমন আলীকে (২০)। পরদিন নির্যাতন চালিয়ে এবং বিষাক্ত ইনজেকশন প্রয়োগ করে হত্যা করা হয় বলে অভিযোগ উঠে।

ওই নিরাময় কেন্দ্রের ক্লোজ সার্কিট ক্যামেরার একটি ফুটেজ ফেইসবুকে ভাইরাল হওয়ার পর বুধবার সন্ধ্যায় উপজেলা প্রশাসন, মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তর ও পুলিশ সেখানে অভিযান চালায়।

উপজেলা সহকারী কমিশনার ভুমি ও নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট রাকিবুল হাসান বলেন, অভিযোগের প্রাথমিক সত্যতা পাওয়ায় প্রতিষ্ঠানের মালিক ও দায়িত্বে থাকা তত্ত্বাবধায়ককে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আটক করে প্রতিষ্ঠানটি সিলগালা করা হয়েছে।

তিনি জানান, সমর্পণে চিকিৎসাধীন ৯ জন রোগীর মধ্যে ৬ জনকে পরিবারের কাছে হস্তান্তর এবং বাকি তিনজনকে কুষ্টিয়ার ‘ফেরা’ নামক মাদক নিরাময় কেন্দ্রে পাঠানো হয়েছে।

মিরপুর থানার ওসি কালাম জানান, ইমনের মৃত্যুকে ঘিরে সৃষ্ট রহস্য উদ্ঘাটনে পুলিশ তদন্ত করছে।

জেলা মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের সহকারী পরিচালক আজিজুল হক বলেন, ‘সমর্পণ মাদকাসক্তি, মানসিক চিকিৎসা সহায়তা ও পুনর্বাসন কেন্দ্রে’ নানা অনিয়ম নজরে এসেছে। প্রাথমিকভাবে অভিযোগ প্রমাণিত হওয়ায় আমরা প্রতিষ্ঠানটি সিলগালা করেছি।

এদিকে সেখানে থাকা চিকিৎসা নিতে আসা কয়েকজন রোগীর সাথে কথা বললে তারা জানান, ওখানে প্রতিনিয়তই রোগীদের ওপর শারীরিক টর্চার করা হয়। যদি প্রতিবাদ করা হয় তাহলে হাত পা বেঁধে নির্যাতন করা হয়। কোন অফিসার ভিজিটে আসলে সবাইকে কি বলতে হবে সেগুলো শিখিয়ে দেয়া হয়। শিখানো কথার বাইরে কিছু বললেই শুরু করে শারীরিক নির্যাতন। কোন ঔষধ চাইলে ঔষধ দেয়া হয় না। যদি ভাত একটু বেশি চাই তবে একবারে ৫ প্লেট ভাত চাপিয়ে দিয়ে বলে সব খেয়ে উঠবি। যদি মরে যায় তবুও তোকে খেয়ে উঠতে হবে। এমনকি আমাদের দিয়ে বাথরুম পরিষ্কার রান্নাবান্না করানো থালা বাসন ধোয়া সহ সব কাজ করিয়ে নেয় সমর্পণ কর্তৃপক্ষ।

সর্বশেষ

কুষ্টিয়ায় আর্জেন্টিনা-ব্রাজিল সমর্থকদের সংঘর্ষে আহত ৭

কুষ্টিয়া সদর উপজেলায় বিশ্বকাপ ফুটবলের ফাইনাল খেলা নিয়ে বাগ্‌বিতণ্ডার পর সংঘর্ষে জড়িয়ে অন্তত সাতজন...

কুষ্টিয়ায় শিক্ষার্থীকে শ্লীলতাহানি, বরখাস্ত প্রধান শিক্ষককে পুলিশে সোপর্দ

কুষ্টিয়ার কুমারখালীতে পঞ্চম শ্রেণীর এক শিক্ষার্থীকে শ্লীলতাহানির মামলায় বরখাস্ত প্রধান শিক্ষককে বৃহস্পতিবার (১৫ ডিসেম্বর)...

কুষ্টিয়ায় পৃথক সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত ২

কুষ্টিয়ায় পৃথক সড়ক দুর্ঘটনায় একটি শিশুসহ দু’জনের মৃত্যু হয়েছে।   বৃহস্পতিবার (১৫ ডিসেম্বর) দুপুরের দিকে...

পাসপোর্ট সংশোধনে সরকারের নতুন নির্দেশনা

এনআইডির তথ্য অনুযায়ী পাসপোর্ট রি-ইস্যুর নির্দেশ স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের জাতীয় পরিচয়পত্রে (এনআইডি) দেওয়া তথ্য অনুযায়ী পাসপোর্ট...

আরও পড়ুন

কুষ্টিয়ায় স্বামী-স্ত্রী পরিচয়ে হোটেলে, কলেজছাত্রীর মৃত্যুর পর যুবক আটক

কুষ্টিয়ায় একটি আবাসিক হোটেলে শয্যা বিশ্বাস (১৮) নামে এক কলেজছাত্রীর মৃত্যু হয়েছে। এ ঘটনায়...

টিউশনি করে গোল্ডেন এ প্লাস পেলেন কুষ্টিয়ার জমজ দুই বোন

সংসারের একমাত্র উপার্জনক্ষম বাবা দীর্ঘদিন ধরে মানসিক রোগী। টিউশনি করে কোন রকমে সংসার চালাচ্ছেন...

ব্রাজিলের পতাকা টাঙাতে গিয়ে কুষ্টিয়ার মাদ্রাসা ছাত্রের মৃত্যু

কুষ্টিয়ার কুমারখালীতে সুপারি গাছে ব্রাজিলের পতাকা টাঙাতে গিয়ে বিদ্যুতায়িত হয়ে মিঠু শেখ (১৪) নামে...